1. tanvirinternational2727@gmail.com : NewsDesk :
শনিবার, ২৪ জুলাই ২০২১, ০৯:৩৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
নড়াগাতীতে দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ আটক ৬ দেশীয় অস্ত্র উদ্ধার নৌক ভ্রমনে ইউএনও লকডাউনের বিধিনিষেধ উপেক্ষা করে। “মরিচ্যা চেকপোষ্টে কোটি টাকার ইয়াবা উদ্ধারঃ ইজিবাইকসহ ড্রাইভার আটক।” জীবননগরে লকডাউন বাস্তবায়নে কঠোর অবস্থানে উপজেলা প্রশাসন সোনারগাঁ উপজেলা প্রশাসনের কঠোর অবস্থানের মধ্য দিয়ে শেষ হলো লগডাউনের দ্বিতীয় দিন। মাধবপুরে করোনা ঝুঁকি নিয়ে কাজ করছে রাবার শ্রমিকরা ! সাংবিধানিক কারণে সিলেট-৩ উপনির্বাচন পেছানোর সুযোগ নেই: সিইসি রাজারহাটের বুড়িরহাট স্পারটির ফের ধ্বস ২৪ ঘন্টায় পুনঃসংস্কার করলেন কুড়িগ্রাম পাউবো। করেনার উপসর্গে নোয়াখালী কোভিড হাসপাতালে ২ জনের মৃত্যু আত্রাইয়ে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে দ‌ই তৈরি করায় জরিমানা

ধোবাউড়ায় ৪ মাসের অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে হত্যার অভিযোগে স্বামী গ্রেফতার

  • সময় : সোমবার, ৫ জুলাই, ২০২১
  • ১২৭


আনোয়ার সাদত জাহাঙ্গীর,ময়মনসিংহ প্রতিনিধিঃ 

ময়মনসিংহের ধোবাউড়া উপজেলার দক্ষিন মাইজ পাড়া ইউনিয়নের উত্তর রানীপুর গ্রামের আব্দুল মোতালেবের কন্যা হালিমা খাতুন হত্যার অভিযোগে তার স্বামীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।হালিমা খাতুন এর পারিবারিক সূত্রে জানা যায়,তার এক কন্যা সন্তান রেখে দশমাস পুর্বে ২য় বিয়ে হয় একই  ইউনিয়নের খাগগড়া গ্রামের পাঁচ সন্তানের জনক হুমায়ুন কবির আকন্দের সাথে।বিয়ের পর থেকেই হালিমা খাতুনের সাথে যৌতুকের টাকা নিয়ে পারিবারিক কলহ চলছিল স্বামীর।গত ১৫ মার্চ দুপুরে হালিমা ও তার স্বামী বসত ঘরে শুয়ে ছিল।বিকেলে ঘরের দরজা বন্ধ দেখে হুমায়ুন কবির আকন্দে বড় ভাইয়ের স্ত্রী দরজায় ধাক্কা দেয়। এক পর্যায়ে পুলিশকে খবর দিলে ঘরের ধর্নার সাথে হালিমার ঝুলন্ত লাশ পুলিশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। মৃত্যুর ঘটনাটি সন্দেহ হলে পুলিশ ময়না তদন্তের জন্য লাশ ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরন করেন। গত ৩ জুলাই ময়না তদন্তের রিপোর্টে সূত্রে জানা যায়,হালিমাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। হালিমার ভাই মোঃ হাফিজ উদ্দিন ময়নাতদন্তের রিপোর্ট জানতে পেরে ৪ জুলাই ধোবাউড়া থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। রাতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে হালিমার স্বামী হুমায়ুন কবির আকন্দকে আটক করে ৫ জুলাই ময়মনসিংহ আদালতে প্রেরন করেছেন বলে জানান ওসি মোঃ আবুল কালাম আজাদ। এ বিষয়ে হালিমার ভাই জানান,যৌতুকের বলি হয়েছেন তার ৪ মাসের অন্তঃসত্বা বোন হালিমা। তাকে শ্বাসরুদ্ধ করে হত্যা করে আত্মহত্যা বলে চালিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করে স্বামী  হুমায়ুন কবির আকন্দ ও তার পরিবারের লোকজন। তার বোন হালিমাকে যে ভাবে হত্যা করে ফাঁসিতে ঝুলানো হয়েছে ঠিক একই ভাবে আইনের মাধ্যমে  তার বোনের হত্যাকারীদের তিনি ফাঁসি দাবী করেন তিনি।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের অন্যান্য খবর
©বাংলাদেশবুলেটিন২৪