1. tanvirinternational2727@gmail.com : NewsDesk :
শুক্রবার, ১৬ এপ্রিল ২০২১, ১১:৪১ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
পাবনায় অপহরণের দু’ঘণ্টার মাথায় উদ্ধার করল পুলিশ নওগাঁর মহাদেবপুর থানা পুলিশের উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন বয়োবৃদ্ধকে উদ্ধার করে পরিবারের কাছে হস্তান্তর স্বেচ্ছাসেবক লীগ এর উদ্যোগে মানবতার ভ্যান চালু। ব‌রিশা‌লে হাসপতা‌লের মা‌ঠেও ডায়‌রিয়ার চি‌কিৎসা,দুই রোগীর মৃত্যু ময়মনসিংহের ভালুকায় গৃহবধূ সহ ২ জনের লাশ উদ্ধার ছিন্নমূল জনগনের পাশে টানা তৃতীয় দিন ইফতার হাতে ফরিদপুর জেলা ছাত্রলীগ নড়াইলের ব্রিটিশ আমলের সিমানা পিলার ও বোমা তৈরীর গান পাউডার উদ্ধার ময়মনসিংহে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনায় নিহত ২ নড়াইলে নদীতে গোসল করতে গিয়ে শিশুর মৃত্যু মুক্তাগাছা উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল হাই সাময়িক বরখাস্ত

একবার লিখেছিলাম “একাই লড়ছেন শেখ হাসিনা” আবারও লিখছি একাই লড়ছেন শেখ হাসিনা।

  • সময় : সোমবার, ৮ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
  • ৭০

শওকত জাহিদ


আল জাজিরা টেলিভিশন একটি রিপোর্ট তৈরী করেছে জননেত্রী শেখ হাসিনা ও সেনাপ্রধান এম এ আজিজ এর দূর্নীতি ও মাফিয়া সংযোগ, ও সরকারের দুঃশাসন সম্পর্কিত। রিপোর্টটি তৈরীর ক্ষেত্রে আল জাজিরা টিম যেমন মিথ্যাশ্রয়ী হয়েছেন, তেমনি প্রচারের ক্ষেত্রেও অস্থির সময় বেছে নিয়েছেন, যাতে করে ঘোলা পানিতে মাছ শিকারীরা সময়টি কাজে লাগাতে পারে।

প্রশ্ন জাগতে পারে আল জাজিরা কেন এটি করবে? সহজ উত্তর তাদের ক্লায়েন্টদের খুশী করার জন্য। ক্লায়েন্ট কারা? যদি বহির্বিশ্বের দিকে তাকাই তাহলে প্রথমেই বলতে হবে মৌলবাদী জঙ্গি গোষ্ঠী আল কায়েদা। ও অপরাপর ইসলামিক নামধারী জঙ্গি গোষ্ঠীগুলো। তাদের অপারেশনের প্রথম ভিডিওটি প্রকাশ করে আল জাজিরা। এবার আসি বাংলাদেশে যখন এদেশে যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের কাজ চলছিলো তখন এই আল জাজিরা টেলিভিশন যুদ্ধাপরাধীদের পক্ষ নিয়ে নানাভাবে বিভ্রান্তি ছড়িয়ে বিশ্ব জনমত ভিন্ন দিকে নেওয়ার চেষ্টা করেছিলো। এবার ওদের ক্লায়েন্টদের নিশ্চই চিনতে পারছেন?

কেন এই মূহুর্তে এই প্রতিবেদন?
গনতন্ত্রের মানস কন্যা, প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্বে দেশ আজ মধ্যম আয়ের দেশ। ৪১ সালের আগেই উন্নত দেশে পরিনত হবে। পদ্মা সেতু সহ মেগা প্রকল্প গুলো শেষের পথে। জননেত্রী শেখ হাসিনা বিশ্ব দরবারে মর্যাদার আসনে সমাসীন, আর আল জাজিরার নেত্রী বেগম খালেদা জিয়া দূর্নীতির দায়ে কারাগারে। আবার জামাত বি এন পি আন্দোলন ও নির্বাচনে ব্যার্থ। এমতাবস্থায় বিকল্প পথ খোঁজা ছাড়া ওদের আর কোন উপায় নাই। অন্যদিকে সেনাবাহিনী প্রধান কে নিয়ে কল্পকথা তৈরীর উদ্যেশ্য হচ্ছে অন্য অফিসারদের উস্কে দিয়ে বিশৃংখলা তৈরী করা। আর এই ঘটনাটি ঘটানো হলো মায়ানমারে সামরিক ক্যু এর পরদিন। অতএব সহজেই অনুমেয় ডালমে কুচ কালা হায়।
এটা একটা গভীর ষড়যন্ত্র। জননেত্রী শেখ হাসিনা আর বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র।

একাই লড়ছেন জননেত্রী শেখ হাসিনা
বারবার এ সকল ষড়যন্ত্রের প্রধান টার্গেট জননেত্রী শেখ হাসিনা, বারবার তাকে হত্যার চেষ্টা করা হয়েছে। কারন প্রতিপক্ষ জানে শুধুমাত্র শেখ হাসিনাকে শেষ করতে পারলেই বাংলাদেশকে কব্জায় নেওয়া যাবে, আবার সেই পাকিস্থানি ভাবধারায় চালানো যাবে এদেশকে। তাই বারবার আঘাত আসে জননেত্রী শেখ হাসিনার উপরে। আর এসবের বিরুদ্ধে দৃঢ় অবস্থান নিয়ে দেশকে এগিয়ে নেওয়ার লড়াইটা একাই চালিয়ে যাচ্ছেন জননেত্রী শেখ হাসিনা।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের অন্যান্য খবর
©বাংলাদেশবুলেটিন২৪