1. tanvirinternational2727@gmail.com : NewsDesk :
শুক্রবার, ২৭ মে ২০২২, ০৮:০৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
আশুলিয়ায় শ্রমিকদের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচীতে বিএনপি নেতার হামলা সাভারে তিন সাংবাদিককে হত্যার হুমকি! নেপথ্যে উপজেলা চেয়ারম্যান রাজিব স্পন্সর না পাওয়ায় সাংস্কৃতিক পোগ্রাম থাকছে না কুবির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে ত্রিশালে ৩ দিন ব্যাপি কবি নজরুলের জন্মবার্ষিকীর অনুষ্ঠান শুরু নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুতের দাবীতে গাইবান্ধায় মানববন্ধন রাজশাহীতে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ১২৩তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন ঝালকাঠিতে ৮৩০ কেন্দ্রে ৮৫৫৪৮ শিশুকে ভিটামিন “এ প্লাস” ক‌্যাপসুল খাওয়ানো হবে নারীর রাজনৈতিক ক্ষমতায়নে নলছিটিতে অপরাজিতাদের মতবিনিময় সভা রাজাপুরে উপজেলার বড়ইয়া ডিগ্রী কলেজ শ্রেষ্ঠ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নির্বাচিত চবি উপাচার্যের সাথে চবি শিক্ষক সমিতি কার্যনির্বাহী পরিষদের সৌজন্য সাক্ষাৎ

মাধবপুরে তীর সয়াবিন তেলের ডিলারকে ১ লক্ষ ২০ হাজার টাকা জরিমানা

  • সময় : সোমবার, ২ মে, ২০২২
  • ১৪

 

মাধবপুর (হবিগঞ্জ) প্রতিনিধি

০১ মে রবিবার দুপুরে মাধবপুর বাজারে বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট শেখ মঈনুল ইসলাম মঈন।

বাজারের সয়াবিন তেলের ডিলারের দোকানে তেল নেই, সেটা কেমন কথা হয়। লোকজন সয়াবিন তেল কিনতে গেলে দোকানদার বলছিলেন তেল নেই। খোলা তেল নিতে হবে। বোতলের চেয়ে খোলা তেলের দাম বেশি। এত বড় দোকানে তেল থাকবে না এটা ভোক্তাদের কাছে অবিশ্বাস্য মনে হচ্ছিল। পরে ভোক্তারাই জানতে পারেন ওই মুদি দোকানির গোডাউনে বিপুল পরিমাণ তেল মজুদ রয়েছে।

খবর পেয়ে সেখানে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট শেখ মঈনুল ইসলাম মঈন।

পরে ওই মুদি দোকানির গোডাউন থেকে থেকে বের করা হয় বিপুল পরিমাণ তীর সয়াবিন তেলের কার্টুন।মেসার্স অজিত কুমার পাল নামে দোকানটির অবস্থান মাধবপুর বাজারে কালি মন্দির এলাকায়। ওই মুদি দোকান ও তীর সোয়াবিন তেলের ডিলার। তেল লুকিয়ে কৃত্রিম সংকট তৈরি করার অপরাধে দোকানটির মালিক অজিত কুমার পালকে কৃষি বিপণন আইন ২০১৮ আইনে ১ লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। সেই সঙ্গে মজুতকৃত তেল ভোক্তাদের কাছে বাজার মূল্য বিক্রি করার নির্দেশ দেন। 

এ ছাড়াও আরও একটি দোকানিকে ২০ হাজারটাকা জরিমানা করা হয় ও মেসার্স শংকর পাল, মেসার্স স্বপন রায়, সুনিল স্টোর,নিলয় স্টোর, রবীন্দ্র স্টোর ,কাজল ঠাকুরসহ বাজারে দোকানিদের বাজার মূল্য তেল বিক্রি করার নির্দেশ দেন ।


উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট শেখ মঈনুল ইসলাম মঈন জানান, দোকানিরা তেল মজুদ করে কৃত্রিম সংকট তৈরি করছে। জানতে পেরে আমরা মেসার্স অজিত কুমার পালের দোকানে গিয়ে দেখি বোতলজাত করা কোনো তেল নেই। পরে তার গুদামে গিয়ে প্রচুর পরিমাণ তেল পাওয়া যায়। তেল লুকিয়ে কৃত্রিম সংকট তৈরি করার অপরাধে দোকানের মালিককে ১ লক্ষ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

এ ছাড়াও আরও ১টি দোকানের মালিককে ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।এসময় উপস্থিত ছিলেন, মাধবপুর থানার এসআই হুমায়ূন কবির নেতৃত্বে একদল পুলিশ ও স্থানীয় কাউন্সিলর পিন্টু পাঠান, কাউন্সিলর শেখ জহির সাংবাদিক আলমগীর কবির, নাহিদ মিয়াসহ প্রমূখ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের অন্যান্য খবর
©বাংলাদেশবুলেটিন২৪